নিদ্রাহীনতা এবং ঘুম সংক্রান্ত সমস্যায় করণীয়

[ক]
প্রতিদিন ঘুমের সময় কিছু কাজ সবারই করা উচিত। কোন সমস্যা থাকুক অথবা না থাকুক, সবারই…
১. ওযু করে বিছানায় যাওয়া।
২. শোয়ার পূর্বে বিছানা ৩বার ঝেড়ে নেয়া।
৩. ডান কাত হয়ে শোয়া, পরে অন্য দিকে ঘোরা যাবে। গালের নিচে হাত রাখা।
৪. আয়াতুল কুরসি এবং বাকারার শেষ ২ আয়াত পড়া
৫. সুরা ইখলাস, ফালাক, নাস পড়া এবং হাতে ফুঁ দিয়ে শরীর মুছে নেয়া। এভাবে ৩বার করা।
৬. ঘুমের দোয়া পড়া, বিশেষতঃ বিসমিকা – আল্লাহুম্মা… এবং বিসমিকা রব্বী… দোয়া দুইটি
৭. সুবহানাল্লাহ ৩৩বার, আলহামদুলিল্লাহ ৩৩বার, আল্লাহু আকবার ৩৪বার পড়া।
৮. সম্ভব হলে এসময়ের অন্যান্য আরও মাসনুন যিকর করা।
৯. প্রতি রাতে সুরা মূলক তিলাওয়াত এর চেষ্টা করা।
(ঘুমের আগের যিকরগুলো একত্রে পাওয়া যাবে হিসনুল মুসলিম বই এবং আমাদের “মাসনুন আমল” অ্যাপে। লিংক কমেন্টে দেয়া হল।)

মাসনুন আমল অ্যাপ ডাউনলোড : http://bit.ly/masnun-app

ওয়েব ভার্শন: http://ruqyahbd.org/dua


[খ]
যাদের নিদ্রাহীনতার সমস্যা আছে, রাতে ঠিকমত ঘুম আসে না, এপাশ ওপাশ করে রাত কেটে যায়, তাদের জন্য কিছু টিপস এবং রুকইয়াহ –

১. ওপরের কাজ এবং যিকরগুলো করুন।
২. সুরা কাহফ; আয়াত ১১, ত্বহা; আয়াত ১০৮, নাবা; আয়াত ৯ – সবগুলো তিনবার/সাতবার পড়ে হাতে ফুঁ দিয়ে মাথা থেকে পুরো শরীর (স্বাভাবিকভাবে যতদূর হাত যায়) মাসাহ করুন, পানিতে ফুঁক দিয়ে পান করুন। এভাবে লাগাতার সপ্তাহখানেক করুন। ইনশাআল্লাহ সমস্যা ঠিক হয়ে যাবে।
৩. চাই প্রতি রাতে যায়দ বিন সাবিত রা. এর দোয়াটা পড়তে পারেন। (আল্লাহুম্মা গারাতিন নুজুম…)

اللهُمَّ غارَتِ النجومُ ، وهَدَأتِ العُيونُ ، وأَنْتَ حَيٌّ قَيُّومٌ ، يا حَيُّ يا قَيُّومُ ! أَنِمْ عَيْنِي ، وأَهْدِئْ لَيْلِي

৪. এরপরেও সমস্যা থাকলে ঘুমের আগে সুরা বাকারা অথবা ৮সুরার রুকইয়াহ শুনুন। প্রতিদিন রুকইয়ার গোসল করুন।
.
(এই অংশটি শাইখ হাসান বিন ইলিয়াসের মেসেজ অবলম্বনে..।)
.
[গ]
ঘুমের সময় জ্বিন সেক্সুয়াল হ্যারাশমেন্ট করলে বা ফিজিক্যাল টর্চার করলে “রাত্রিতে জ্বিনের সমস্যা” লেখাটা ফলো করুন। লিংক কমেন্টে দেয়া হবে।

link: রাত্রীতে জ্বিনের (সেক্সুয়াল/ফিজিক্যাল টর্চার) সমস্যা – https://facebook.com/ruqyahbd.official/posts/577466732659704


এক্ষেত্রে সমস্যা বেশি হলে, স্থায়ী আরোগ্যের জন্য গুরুত্বের সাথে সময় নিয়ে রুকইয়াহ করে যেতে হবে।
.
আল্লাহ আমাদের পেরেশানি দূর করে দিক, প্রশান্তির ঘুম এনে দিক।। আমিন।

Leave a Reply

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twenty six − = sixteen