ঔষধ এবং রুকইয়াহ

ইনবক্সে পাওয়া প্রশ্ন-

“আসসালামু আলাইকুম। প্রিয় শাইখ আমি আপনাকে আল্লাহ্‌’র জন্যই ভালবাসি। রুকইয়্যাহ আমার কাছে এত ভাল লাগে যে আমার এখন আর কোন ঔষধই খেতে মনে চায় না।মনে চায় রুকইয়্যাহ করতে করতে মরে যাব তবু ঔষধ খাব না।এটা কি কোন সমস্যা করবে?? নাকি এমন মনোভাব রাখা জায়েজ আছে?”

উত্তর- 

“ওয়ালাইকুমুসসালাম। না, ভাই এমন মনোভাব রাখা উচিত না। রাসুলুল্লাহ সল্লাল্লহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম রুকইয়াও করেছেন, ঔষধও খেয়েছেন, প্রয়োজন অনুযায়ী অন্য চিকিৎসাও নিয়েছেন (যেমনঃ হিজামা থেরাপি) সুতরাং যখন যে চিকিৎসা করার প্রয়োজন হবে, সেটাই করতে হবে। 

শুধুমাত্র রুকইয়ার ওপর নির্ভরশীল হওয়াকে আমি সুন্নাতের খিলাফ মনে করি। ঔষধ-সার্জারি এগুলো আল্লাহর নিয়ামাত, এসব না গ্রহণ করার মাঝে বুজুর্গি নাই, মুর্খতা আছে।

তবে আপনি চাইলে অন্যান্য চিকিৎসার পাশাপাশি রুকইয়াহ করতে পারেন, কোন সমস্যা নেই। এতে আরও তাড়াতাড়ি সুস্থতা পাবেন ইনশাআল্লাহ।”

Leave a Reply

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।